সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে? স্কেল ও বেতন!

আপনি কি সিঙ্গাপুর যেতে চান? সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে এবং বর্তমানে স্কেল করতে কত টাকা লাগে এবং সিঙ্গাপুর কাজের ভিসার দাম কেমন সেই বিষয় সম্পর্কে আজকের এই পরে আর্টিকেলে বিস্তারিত জানতে পারবেন। বর্তমানে প্রবাসে যাওয়ার জন্য অন্য দেশের থেকে সিঙ্গাপুর যাওয়া সবচেয়ে বুদ্ধি মানের কাজ।

আপনি যদি বিদেশে যেতে চান তাহলে আপনার জন্য সিঙ্গাপুর আদর্শ দেশ হতে পারে, আপনি যদি একটু ভালো ইংলিশ পারেন নিজের স্কেল ডেভেলপ করতে পারেন তাহলে আপনি ভালো বেতনে কাজ পাবেন। অন্য দেশে যেতে হলে আপনার শুধু ভিসার প্রয়োজন হবে, কিন্তু সিঙ্গাপুর যেতে হলে আপনাকে প্রথমে সিঙ্গাপুর স্কেল করতে হবে অথবা আন স্কেল এর মাধ্যমে যেতে হবে।

এই আর্টিকেলে আপনাদেরকে জানিয়ে দেবো সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগতে পারে সিঙ্গাপুর ভিসার কি রকম দাম। কিভাবে সিঙ্গাপুর খুব সহজেই কম টাকায় যেতে পারবেন তো চলুন কথা না বাড়িয়ে মূল বিষয়ে চলে যাই।

সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে ২০২৩

সিঙ্গাপুর দুইভাবে যাওয়া যায়, স্কেল করার মাধ্যমে আর অন্যটি হলো আন স্কেল এর মাধ্যমে। তবে, সবচেয়ে ভালো পন্থা হলো স্কেল করার মাধ্যমে সিঙ্গাপুর যাওয়া, স্কেল করে সিঙ্গাপুর যাওয়ার জন্য আপনাকে অবশ্যই বিসিএ (BCA) কর্তৃক করতে পরীক্ষা দিতে হবে।

স্কেল করার মাধ্যমে সিঙ্গাপুর যেতে বাংলাদেশী টাকায় ৯ নয় থেকে ১০ দশ লাখ টাকার মতো খরচ পড়বে। স্কেল করার মাধ্যমে আপনি ১৮ বসর সিঙ্গাপুর থাকতে পারবেন।

নতুন করে স্কেল করতে ৬ থেকে ৭ লাখ টাকা লাগে আর আইপি করতে ২ থেকে ৩ লাখ টাকা লাগে তাই এক কথায় বলা যায় সব মিলিয়ে ৯ থেকে ১০ লাখ টাকার মতো খরচ হবে।

আন স্কেল করার মাধ্যমে সিঙ্গাপুর যেতে ৭ সাত লাখ টাকার মত খরচ হবে। তবে, আপনি ২ বসর এর বেশি সিঙ্গাপুর থাকতে পারবেন না। কারন স্কেল সার্টিফিকেট ছাড়া ২ দুই বছর এর বেশি আইপিএ হয় না।

সিঙ্গাপুর স্কেল ট্রেনিং

সিঙ্গাপুর স্কেল করার জন্য আপনাকে ট্রেনিং সেন্টারে ভর্তি হতে হবে। এ ক্ষেত্রে আপনি মেইন সেন্টার এবং সাব সেন্টার এ ভর্তি হতে পারেন।

পরিচিত লোক ধরে ভর্তি হলে ভালো হয়। আপনি জিরাবো, মোল্লা বাজার এইসব জায়গা থেকে সাব সেন্টার দেখতে পারেন। তবে হ্যা বর্তি হওয়ার আগে সব টাকা পয়সার আলাপ আগে করে ফেলবেন।

সিঙ্গাপুর স্কেল ট্রেনিং সেন্টার আশুলিয়া, সিঙ্গাপুর স্কেল ট্রেনিং সেন্টার সবচেয়ে বেশি আশুলিয়ায়। অনেক গুলো সাব সেন্টার রয়েছে আশুলিয়ায়।

আপনি চাইলে সেগুলো ভিজিট করে পসন্দ মত ভর্তি হতে পারেন। আপনার পছন্দ মতো ট্রেড নিয়ে কাজ শিখতে হবে এবং কাজে এবং থিওরিতে পারফেক্ট হলে সিঙ্গাপুর অনুমোদিত মেইন সেন্টারে পরীক্ষা দিতে হবে।

পরীক্ষায় কৃতকার্য হলে আপনাকে (BCA) কর্তৃক স্কেল সার্টিফিকেট দেওয়া হবে।

সিঙ্গাপুর ভিসা কত টাকা

সিঙ্গাপুর ভিসা কত টাকা – বর্তমানে সিঙ্গাপুরের ভিসা সর্ব নিম্ন ৯০ হাজার টাকা থেকে শুরু করে ৩ লাখ টাকা পর্যন্ত আছে। সিঙ্গাপুরের ভিসা কত টাকা পড়বে এটা নির্ভর করবে আপনি কি রকম কোম্পানিতে যাবেন।

আপনি যদি মালটিস্কেল করে থাকেন তাহলে অনেক বড় কোম্পানিতে যেতে পারবেন সে ক্ষেত্রে আপনাকে ভিসা বা আইপিএ এর জন্য বেশি টাকা দিতে হবে।

আপনি যদি চান তাহলে কম টাকায় সিঙ্গাপুর যেতে পারবেন। সে ক্ষেত্রে কোম্পানি মেইনকন নাও হতে পারে। সাবকন কোম্পানি হওয়ার সম্ভাবনা বেশি হবে, এমনও হতে দুই বছর কন্টাক্ট শেষে আপনার কন্টাক্ট আর করবে না।

তাই যাওয়ার সময় ভালো কোম্পানি দেখে যেতে হয়, এতে খরচ একটু বেশি হলেও এটা আপনার জন্য ভালো হবে। তাই সিঙ্গাপুর যাওয়ার আগে কোম্পানি চেক করে নিবেন।

সিঙ্গাপুর বেতন কত

সিঙ্গাপুর বেতন কত – প্রবাসে যাওয়ার কথা হলেই সর্ব প্রথমে আছে বেতনের কথা। কারন এতগুলো টাকা খরচ করে যাবো আর কত টাকা কামানো যাবে এটা জানবো না? তাই আপনাদের সিঙ্গাপুর বেতন সম্পর্কে কিছু ধারণা দিতে কিছু আলোচনা করবো।

আপনারা সবাই জানেন করো বেতন কখনো নির্দিষ্ট করে বলা যায় না। আপনাদের ধারণা দেওয়ার জন্য বলছি যারা নতুন সিঙ্গাপুরে যায় তাদের সর্বনিম্ন বেসিক বেতন 18 থেকে ২১ ডলার পর্যন্ত হয়ে থাকে এবং ওভারটাইম ডিউটি করার মাধ্যমে এর দেড়গুণ পেয়ে থাকে।

মাস শেষে নতুন কর্মীরা ৮০০ থেকে ১১০০ ডলার পর্যন্ত পায়। তবে বেশি হওয়া সেটা ওভারটাইম এর উপর নির্ভর করে। বাংলা টাকায় ৭০ থেকে ৮০ হাজার টাকা।

যারা পুরাতন কর্মী এবং মাল্টিস্কেল আছে তাদের বেতন বেশি ওভারটাইম মিলিয়ে মাসে ১৫০০ থেকে ১৭০০ ডলার পর্যন্ত পায়।

আর যাদের (S) এস পাশ আছে সিঙ্গাপুরে তাদের বেসিক বেতন সর্ব নিম্ন ২৫০০ থেকে ৩ হাজার ডলার পর্যন্ত হয়। এবং তারা যদি ওভারটাইম করে তাহলে মাস শেষে ৩৫০০ থেকে ৪ হাজার ডলার পায়। বাংলা টাকায় ২ লাখ টাকার আসে পাশে।

তাই আমাদের পরামর্শ সিঙ্গাপুর গেলে প্রথম থেকেই নিজেকে ডেভেলপ করার চেষ্টা করবেন। যত কাজের উপর আপনার স্কেল বাড়বে তত আপনার বেতন বাড়বে।

সিঙ্গাপুর স্কেল ট্রেনিং খরচ কত

বিদেশে যাওয়ার জন্য আমরা যারা চেষ্টা করি বা সিঙ্গাপুর যাওয়ার চেষ্টা করি তারা অবশ্যই জানতে চাই সিঙ্গাপুর স্কেল করতে কত টাকা খরচ হয়। তো এখন আপনাদের উদ্দেশ্যে বলবো সিঙ্গাপুর স্কেল ট্রেনিং করতে ৬ থেকে ৭ লাখ টাকার মত খরচ হয়ে থাকে।

আবার আইপি করে যেতে আরো কিছু টাকা লাগে, সব মিলিয়ে ১০ লাখ টাকার মতো খরচ হবে।

তবে, আপনি যে জায়গায় ভর্তি হন না কেন প্রথমে টাকার বিষয় আলাপ করে নিবেন। হতে পারে আপনার আপনি আরো কম টাকায় সিঙ্গাপুর যেতে পারেন।

সিঙ্গাপুর স্কেল সার্টিফিকেট চেক

আমরা স্কেল পরীক্ষা পাস করার পর সবাই আমাদের স্কেল সার্টিফিকেট চেক করতে চাই। আপনি চাইলেই আপনার সিঙ্গাপুর স্কেল সার্টিফিকেট অনলাইন থেকে চেক করে নিতে পারেন।

আপনার পরীক্ষা পাস করার কিছু দিন পরে সিঙ্গাপুর সরকারি গভর্মেন্ট ওয়েবসাইটে আপনার পাস করা সার্টিফিকেট আপলোড করে।

স্কেল সার্টিফিকেট চেক করার জন্য আপনাকে www.mom.gov.sg এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে এবং মেনু থেকে আইপিএ চেক ক্লিক করে আপনার ইনফরমেশন দিয়ে রেজাল্ট দেখতে পারবেন।

আপনি রেজাল্ট পাওয়ার সাথে সাথে চেক করতে পারবেন না, আপনার ইনফরমেশন তাদের ওয়েবসাইটে আপলোড দিতে কিছু সময় নিবে তারা। তাই রেজাল্ট এর পরে কিছু দিন অপেক্ষা করুন।

সিঙ্গাপুর স্কেল পাস করতে কতদিন লাগে?

সিঙ্গাপুর স্কেল পাস করতে ৩ থেকে ৪ মাস লাগে তবে আপনি আগে পারফেক্ট হলে ২ মাসে স্কেল পাস করা সম্বব।

আমাদের শেষকথা: আপনাদের জন্য আজকে সিঙ্গাপুর সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিলাম। কারো যদি আরো প্রশ্ন থাকে তাহলে নিচে কমেন্ট করে জানতে পারেন। আমরা যত দূত সম্বব উত্তর দেয়ার চেষ্টা করব।

আরও পড়ুনং,

12 thoughts on “সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে? স্কেল ও বেতন!”

  1. PCM কম্পানিতে গেলে কেমন সুবিদা। এবং স্কেল করতে দেয় কি না? আমাদের জানাবেন প্লিজ

    Reply
    • পিসিএম কোম্পানির সম্পর্কে আমার কোন ধারনা নেই তবে আপনি যে কোম্পানিতেই যান না কেন সেখানে আগে থেকে জেনে নেবেন সেই কোম্পানি থেকে আপনাকে স্ক্রিল করতে দিবে কিনা।

      অনেক সময় দেখা যায় কাজের ব্যস্ততার জন্য তারা আপনাকে পরীক্ষার কাজের জন্য বা পড়ার জন্য কোন সময় দেয় না এতে করে সর্বশেষ মুহূর্তে আপনাকে ইস্কীল না করেই দেশে ফিরে আসতে হয়।

      তাই আপনার উচিত যে কোম্পানিতে যান না কেন আগে থেকে ওই কোম্পানিতে লোক আছে এমন লোকের সাথে যোগাযোগ করে শুনে নিবেন।

      এছাড়া ও পিসিএম কোম্পানিতে গেলে এজেন্টের সাথে আলাপ করে দেখতে পারেন এতে আপনাকে তারা সঠিক ইনফরমেশন দিয়ে সাহায্য করতে পারবে।

      Reply
  2. Ekhon Singapore zete ‘s kel ki Bangladesh theke kora jabe ebng kothai theke korle valo hobe janaben inshaa allah plz

    Reply
    • এখন বাংলাদেশ থেকে সিঙ্গাপুর স্কেল করতে পারবেন। আপনি যদি পড়াশুনায় ভালো হয়ে থাকেন এবং ইংরেজিতে দক্ষ হয়ে থাকেন এবং সেই সাথে কাজের প্রতি ভাল গুরুত্ব থাকে তাহলে আপনি সিঙ্গাপুর যে স্কিল করতে পারেন এটা আপনার জন্য সবচেয়ে ভালো হবে তবে এর জন্য আপনি বেশি সময় পাবেন না. তবে আপনি যদি বাংলাদেশের থেকে স্কেল করেন তাহলে অনেক সময় পাবেন যখন ইচ্ছা হবে কাজ শেষ করে তখন পরীক্ষার জন্য গ্রহণ করতে পারবেন।তবে এর জন্য আপনাকে অবশ্যই পরীক্ষার জন্য perfect হতে হবে.

      Reply
  3. সিংগাপুর এ কি কি কাজ আছে এবং কোন কাজে কত টাকা বেতন পাওয়া যায়
    জানাবেন ভাইয়া

    Reply
    • সিঙ্গাপুরের বিভিন্ন ধরনের কাজ রয়েছে তবে সবচেয়ে বেশি যে কাজের প্রতি গুরুত্ব দেওয়া হয় সেটি হল কনস্ট্রাকশন এর কাজ। সিঙ্গাপুরে পাইপ ফিটিং ওয়েল্ডিং ইলেকট্রিক্যাল ও টাইলস লাগানো ইত্যাদি কাজের চাহিদা বেশি তবে অন্যান্য কাজের তুলনায় টাইলসের কাজে বেতন বেশি দেওয়া হয় কারণ এখানে ফুট হিসাব করে টাকা প্রদান করে।

      Reply
  4. এখন কি সিংগাপুর যেতে স্কেল করার প্রকিয়াটি চালু আছে?

    Reply
    • যে এখনো সিঙ্গাপুর স্কিল করার মাধ্যমটি চালু রয়েছে তবে এর জন্য আগের থেকে অনেক বেশি টাকা খরচ হচ্ছে। আপনি চাইলে ট্রেনিং সেন্টারগুলোর সাথে আলাপ আলোচনা করে দেখতে পারেন।

      তবে এখানে উল্লেখ্য এই যে বর্তমানে অনেকেই সিঙ্গাপুর স্কেল করার জন্য সিঙ্গাপুরে আনিস্কেলের যে স্কিল করছে এবং সেখান থেকে দেশে ফিরে পরবর্তীতে আইপিএ করে আবার সিঙ্গাপুর চলে যাচ্ছে।

      Reply
  5. বতর্মানে বাংলাদেশ থেকে কী স্কিল করা যাবে যানাবেন। এবং কোন সেন্টার থেকে করলে ভালো হবে জানাবেন প্লিজ

    Reply
    • যে এখনো বাংলাদেশ থেকে স্কুল করা যায় তবে বাংলাদেশ থেকে করতে এখনো অনেক দেরি হয়। তাই বেশিরভাগ ট্রেনিং সেন্টার গুলো চুক্তিবদ্ধ হয়ে আপনাকে আনিসকেলের সিঙ্গাপুর পাঠিয়ে ওখানে ইস্কেল করিয়ে এনে আবার আপনাকে সিঙ্গাপুর পাঠাবে। জন্য আপনি ভাল কোন এজেন্ট বা বিসিএ কর্তৃক অনুমোদিত সংস্থার সাথে যোগাযোগ করুন।

      Reply
  6. যদি সিঙ্গাপুরের কোন স্কুলে শিক্ষক হিসেবে যেতে চায় এবং নিজে কোম্পানির সাথে কথা বলে অফার লেটার পায়,সেক্ষেত্রে কি স্কিল ট্রেনিং করতে হবে বা ভিসা পেতে সমস্যা হবে?

    Reply

Leave a Reply - Backlink not allowed